রাজশাহীর দুই আদিবাসী কৃষক হত্যার বিচারের দাবিতে নওগাঁয় মানববন্ধন

রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার দুই আদিবাসী কৃষক হত্যার প্রতিবাদ এবং অভিযুক্ত বিএমডিএ গভীর নলকূপ অপারেটর সাখাওয়াত হোসেনের দ্রুত গ্রেফতার ও সুষ্ঠু বিচারের দাবিতে ২ এপ্রিল শনিবার বিকাল ৪টায় নওগাঁর মুক্তির মোড়ে জাতীয় আদিবাসী পরিষদ নওগাঁ জেলা শাখার উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মানববন্ধনে জাতীয় আদিবাসী পরিষদের নওগাঁ জেলা শাখার আহ্বায়ক নরেন চন্দ্র পাহানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জাতীয় আদিবাসী পরিষদের কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক সূভাষ চন্দ্র হেমব্রম, কেন্দ্রীয় সদস্য বিভূতী ভূষণ মাহাতো, নওগাঁ জেলার উপদেষ্টা জয়নাল আবেদীন মুকুল, মহাদেবপুর উপজেলা সভাপতি দিলীপ পাহান, নিয়ামতপুর উপজেলা সভাপতি লগেন কুজুর, মহাদেবপুর উপজেলার সাধারণ সম্পাদক যোগেশ উরাও, আদিবাসী ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি নকুল পাহান, পত্নীতলা উপজেলা সভাপতি সুজিত পাহান, মহাদেবপুর উপজেলা সভাপতি চঞ্চল পাহান,, পোরশা উপজেলার জাতীয় আদিবাসী পরিষদের নেতা ভুগলু উরাও প্রমূখ।

সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন, বাসদ পত্নীতলা উপজেলা নেতা রবিউল টুডু, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী নওগাঁর সংগঠক মিজানুর রহমান, আরকো’র প্রতিনিধি নাইস পারভীন প্রমূখ।

মানববন্ধনে বক্তারা, গত ২৩ ও ২৪ মার্চে গোদাগাড়ী উপজেলার ঈশ্বরীপুর নিমঘুটু গ্রামের দুই আদিবাসী কৃষক অভিনাথ মার্ডি ও রবি মার্ডি দীর্ঘদিন থেকে জমিতে সেচের পানি না পেয়ে কীটনাশক পানে আত্মহত্যায় প্ররোচনাকারী বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিএমডিএ) এর গভীর নলকূপ অপারেটর সাখাওয়াত হোসেনের দ্রুত গ্রেফতার ও বিচারের দাবি জানান। ঘটনার সপ্তাহ অতিবাহিত হলেও অভিযুক্তকে পুলিশ গ্রেফতার করতে গড়িমসি করায় তার প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়ে গোদাগাড়ী থানার ওসির অপসারণ দাবি করা হয়। একইসাথে নিহতদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দেবার দাবি জানানো হয়।

বক্তাদের দাবি বরেন্দ্র অঞ্চলের কৃষকেরা দীর্ঘদিন থেকেই বিএমডিএর গভীর অপারেটরদের বৈষম্য ও সীমাহীন দুর্নীতির শিকার হয়ে আসছে। বক্তারা বলেন বিএমডিএর দুর্নীতি ও বঞ্চনা থেকে মুক্তি চায় দরিদ্র প্রান্তিক কৃষক।

বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published.