সিরাজগঞ্জে আদিবাসী গৃহবধুর আত্মহত্যা

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে পরকীয়া প্রেমে প্রতারিত হয়ে মুক্তি রাণী নামের এক আদিবাসি গৃহবধুর আত্মহত্যার খবর পাওয়া গেছে। গত ৬ই মার্চ দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। আত্মহত্যার আগে ঐ গৃহবধু একটি চিঠি লিখে গেছে।
এলাকাবাসঈ জানান, কারিতাশ ভিত্তিক শিশু শিক্ষা কেন্দ্রের শিক্ষিকা এক শিশু সন্তানের জননী মুক্তি রাণীর সাথে পার্শ্ববর্তী গ্রামের ক্যাবল ব্যবসায়ী আব্দুল হামিদ কৌশলে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। আব্দুল হামিদ মোবাইল ফোনে মুক্তি রাণীর নগ্ন ছবি তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকী দিতে থাকে। নিরুপায় গৃহবধু সোমবার দুপুরে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে আত্বহত্যা করে।
মুক্তির স্বামী ওতুল তাড়াশ থানা পুলিশকে তার স্ত্রীর লেখা চিঠি এবং মোবাইল ফোনটি দিয়ে বলেন, হামিদের কারণেই আমার স্ত্রী আত্বহত্যা করেছে।
এ প্রসঙ্গে তাড়াশ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনজুর রহমান বলেন, লাশ ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
তবে মুক্তির আত্বহত্যার জন্য অভিযুক্ত ক্যাবল ব্যবসায়ী আব্দুল হামিদ শাস্তির দবিতে গুল্টা এলাকার আদিবাসিরা এক বিক্ষোভ করেছেন বলে জানা গেছে।

বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *