শিল্প ও সংস্কৃতি

রাঙামাটিতে শুরু হচ্ছে সপ্তাহ ব্যাপী আর্ট ক্যাম্প এবং আর্ট এক্সিভিশন

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পাহাড়ের আদিবাসী দৃশ্য শিল্পীদের এক মাত্র সংগঠন হিল আর্টিস্ট গ্রুপের উদ্যোগে মঙ্গলবার থেকে রাঙামাটিতে শুরু হচ্ছে সপ্তাহ ব্যাপী আর্ট ক্যাম্প এবং আর্ট এক্সিভিশন শুরু হচ্ছে।
জানা গেছে, মঙ্গলবার সকালের রাঙামাটি সদর উপজেলা মগবান ইউনিয়নের রাইন্যা টগুন ইকো রিসোর্স সেন্টারের দুদিনের আর্ট ক্যাম্প অনুষ্ঠিত হবে। এতে উদ্ধোধন করবেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ অঞ্জলিকা খীসা।
আগামী ৭ থেকে ৯ এপ্রিল পর্ষন্ত রাঙামাটি জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হবে আর্ট এক্সিভিশন। এতে উদ্ধোধন করবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের চেয়ারম্যান জ্যোতিরিন্দ্র বোধি প্রিয় লারমা(সন্তু লারম)। উপস্থিত থাকবেন চাকমা সার্কেল চীফ ব্যারিষ্টার দেবাশীষ রায়।
সহযোগিতায় রয়েছে জেলা শিল্পকলা একাডেমী রাঙামাটি, একে খান ফাউন্ডেশন,রাইন্যা টুগুন ইকো রিসোর্স। মিডিয়া পার্টনার হিসেবে রয়েছে পার্বত্য চট্টগ্রাম ভিত্তিক নিউজ পোর্টাল ও ফটোগ্রাফী ওয়েবসাইট হিলবিডিটোয়েন্টিফোর ডটকম।

হিল আর্টিস্ট গ্রুপ সূত্রে জানা গেছে, হিল আর্টিস্ট গ্রুপ বিগত ২০ বছর ধরে রাজধানী ঢাকাসহ বিদেশেও চিত্র প্রদর্শনী করে আসছে। মূলত আধিবাসী চিত্র শিল্পীদের উৎসাহ অনুপ্ররেণা ও গতিশীল কর্মকান্ড পরিচালনার লক্ষ্যে এই সংগঠনের মূল উদ্দেশ্য। একই ধারাবাহিকতায় ৪ এপ্রিল থেকে ৯ এপ্রিল পর্ষন্ত প্রদর্শনী ও আর্টক্যাম্পের মূল লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য হলো আদিবাসী শিল্পীদের চিন্তাচেতনা,শিল্পকর্ম আদিবাসী জনগণের সামনে উপস্থাপন করা। প্রতি বছর বিজু, সাংগ্রাইং,বৈসুক উপলক্ষে ধারাবাকি ভাবে পার্বত্য জেলাগুলোতে প্রদর্শনী করার প্রতিশ্রুতি এই সংগঠনের পরিকল্পনা রয়েছে।
সূত্র আরো জানায়, এই প্রদর্শনীর ফলে স্থানীয় শিশু-কিশোরেরা,আগামীতে শিল্প,সংস্কৃতি,ঐতিহ্যর প্রতি আগ্রহী হবে। যা একটি সুস্থ ও চিন্তাশীল জাতি গঠনে সহায়ক ভূমিকা রাখবে। বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রামে চারুকলা শিক্ষার কোন প্রতিষ্ঠান নেই। সব আদিবাসী শিল্পীরা তাই ঢাকা ও চট্টগ্রামেই এই বিষয়ে পড়াশুনা করে থাকেন। বেশীর ভাগ চিত্রপ্রদর্শনীও তাই বড় এ দুটি শহরেই অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। এ অবস্থায় স্থানীয় আদিবাসী শিল্প প্রেমিকরা শিল্পীদের শিল্পকর্ম সরাসরি দেখা,ভাবা,আলোচনা কিংবা সমালোচনার বাগিদার হতে বঞ্চিত হচ্ছে। তাই স্থানীয় চিন্তাশীলদের সাথে আরো জীবন ঘনিষ্ঠ হতে,ফলে দর্শক ও শিল্পীদের উভয়েই উপকৃত হবে।

বিজ্ঞাপণ

Back to top button